প্রেম! সেকি বিবাকানন্দের নর নারায়ন সেবা

ভুলে গেল যেথায় ক’লভেদ কামার-কুমোরে,
ডোম-জেলে, শ্রমিক আর ধোপা চামারে।
জীব প্রেমে নিয়ত ঈশ্বর সেবা
দেহ! সে তো মন্দির, হৃদয়ে ইষ্ট দেবতা।
প্রেম! প্রাণধনের কপালে মায়ের তৃপ্তিময় চুমু
শঙ্কায় প্রহরগুণে, অশান্ত মন
চোখের আড়ালে গেলে সন্তান।

প্রেম! সে কি হৃদয়শ্যাম কাছে পাওয়া
আক’ল আবেদন ব্যাক’ল হৃদয়ে
অপলক দৃষ্টিতে শ্রীমতি রাধা রাণীর পথ চাওয়া?
আত্মা-পরমাত্মা মিলনের লীলা।

প্রেম! মাতৃভূমি স্বাধীন করতে মৃত্যুকে বরণ করা।
সয়ে যাওয়া সব কষ্ট বেদনা,
দেখে ফুলের হাসি মুক্ত বাগানে
এতোটুকু শান্তি, সুখের সংসারে,
প্রিয় দেশ, প্রিয় ঠিকানায়।

প্রেম! সেকি নিরাশ হৃদয়ে আশার আলো?
হতে পারে বন্ধু-বন্ধুতে, মনিব-চাকরে,
শিক্ষক-ছাত্রে কিংবা কোন যুগলে।

হ্যাঁ, প্রেম সুন্দর সৃষ্টির নিগূঢ় শক্তি।
শিহরণ, গভীর স্পন্দন হৃদয়ের
 কাছে আসার, কাছে পাওয়ার সাধ,
মিলন মহামিলনের আত্মায় আত্মায় বন্ধনের।
Previous Post Next Post